ঢাকা,  মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ,

বিপিএলে ফাইনালে ওঠার মহারণ শুরু

বিপিএলে ফাইনালে ওঠার মহারণ শুরু

প্রথম কোয়ালিফায়ারে লড়বেন লিটন ও সোহান

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) একচ্ছত্র আধিপত্য দেখিয়েছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ও রংপুর রাইডার্স। এই টুর্নামেন্টে চারবারের চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা। অন্যদিকে প্রথম কোয়ালিফায়ারে তাদের প্রতিপক্ষ রংপুর একবারের চ্যাম্পিয়ন। লিগ পর্বে দুই দলই দারুণ ক্রিকেট খেলেছে। রংপুর তো ১৮ পয়েন্ট নিয়ে টেবিল টপার হয়ে প্লে অফ খেলছে। দুই দলের মধ্যে আজ যারা জিতবে তারাই দশম আসরের ফাইনালের টিকিট কাটবে। অন্যদিকে হেরে গেলেও অন্য দলটির ফাইনালের খেলার আশা বেঁচে থাকবে, তাদের খেলতে হবে দ্বিতীয় কেয়ালিফায়ারে।

মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে সোমবার প্রথম কোয়ালিফায়ার ম্যাচে রংপুর ও কুমিল্লা লড়াইয়ে নামবে। ম্যাচটি শুরু হবে সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায়। যদিও এদিন প্রথম ম্যাচটি হবে এলিমেনেটর রাউন্ডের। ফরচুন বরিশাল লড়বে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের বিপক্ষে। দুপুর দেড়টায় শুরু হওয়া এই ম্যাচে যারা জিতবে, ফাইনালের জন্য তাদের পেরোতে হবে আরেকটি বাধা। প্রথম কোয়ালিফায়ারে হেরে যাওয়া দলের বিপক্ষে তারা খেলবে ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে।


এদিকে প্রথম কোয়ালিফায়ার খেলতে যাওয়া কুমিল্লা ও রংপুর দুটো দলই দেশি-বিদেশি তারকা ক্রিকেটারদের নিয়ে দল গড়েছে। প্রথম পর্বের দুই ম্যাচে দুই দলই মুখোমুখি লড়াইয়ে একবার করে জিতেছে। যেন সেয়ানে সেয়ানে লড়াই। ফাইনালে দুই দলই তাদের শক্তি বাড়িয়েছে। কুমিল্লাতে আগে থেকেই আছেন সুনিল নারিন-আন্দ্রে রাসেল-মঈন আলীরা। তিনজনই বিপিএলের নিয়মিত পারফর্মার। এই আসরেও আছেন ছন্দে। রংপুরের জন্য বড় হুমকি তারা। সেই সঙ্গে আরেক বিদেশি ম্যাথু ফোর্ডও বেশ ভালো করছেন। দেশি ক্রিকেটারদের মধ্যে লিটন দাস ও তাওহীদ হৃদয় বেশ ভালো ছন্দেই আছেন। বোলিংয়ে কুমিল্লার নিয়মিত পেসার মোস্তাফিজুর রহমান মাথার চোটে থাকছেন না একাদশে, তা অনেকটাই নিশ্চিত। বল হাতে তাই নির্ভরযোগ্য কোনও পেসার নেই তাদের। তবে রিশাদ, আলিস আর তানভীর ইসলাম অবশ্য মিলেমিশে চেষ্টা করছেন স্পিন আক্রমণ দিয়ে সেই অভাব দূর করতে। যেখানে তাদের নেতা নারিন।


এদিকে রংপুরকেও পিছিয়ে রাখার সুযোগ নেই। কুমিল্লার ব্যাটারদের জন্য আতঙ্ক হয়ে উঠতে পারেন সাকিব আল হাসান-হাসান মাহমুদরা। শেখ মেহেদীও ভয়ের কারণ প্রতিপক্ষের। ছন্দে আছেন আবু হায়দার রনিও। ব্যাট হাতে খানিকটা পিছিয়ে থাকা রংপুর শিবিরে নতুন করে যোগ দিয়েছেন নিকোলাস পুরান। ব্যাট হাতে সাকিবের ছন্দ যে কারও জন্য হতে পারে হুমকি। অভিজ্ঞ এই অলরাউন্ডার রংপুরের তুরুপের তাস৷ 

রংপুরের জন্য স্বস্তির খবর হলো জিমি নিশামের দারুণ ছন্দ। বেশ ভালোভাবেই বিপিএলের সঙ্গে নিজেকে মানিয়ে নিয়েছেন এই কিউই তারকা। মোহাম্মদ নবি ও আজমতউল্লাহ ওমরজাই জাতীয় দলের দায়িত্ব শেষে ফের দলের সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন। সঙ্গে আছেন ইমরান তাহিরও। সেই সঙ্গে আফগান পেসার ফজলে হক ফারুকিও বাংলাদেশে এসেছেন রাইডার্সদের হয়ে খেলতে। সব মিলিয়ে রংপুর আর কুমিল্লার লড়াইটা যে হবে সেয়ানে সেয়ানে- সেটা বলাই যায়।


কঠিন এই লড়াই টপকে দুই দলই ফাইনালে যাওয়ার স্বপ্ন দেখছে। কুমিল্লার অধিায়ক লিটন দাস যেমন বলেছেন, ‘পুরো টুর্নামেন্টে ভালো খেলেছি। কিন্তু আমার কাছে মনে হয় কোয়ালিফায়ারের ওই নির্দিষ্ট দিনে কতটুকু ইনপুট দিতে পারছি, সেটির ওপর অনেক কিছু নির্ভর করছে। অবশ্যই রংপুর ভালো দল, কিন্তু আমরা আমাদের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করবো। ক্রিকেট সবসময় দলীয় খেলা, নির্দিষ্ট করে নির্ভরশীলতার কিছু নেই। আমরা দল হিসেবে ভালো করছি। দলের সবাই যার যার জায়গা থেকে চেষ্টা করছে ভালো খেলার। আমরা ওটাই কোয়ালিফায়ারে চেষ্টা করবো, যাতে আমাদের জায়গা থেকে সর্বোচ্চটা দিতে পারি।’

রংপুরের অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান বলেছেন, ‘অবশ্যই ক্রিকেট সবসময় দলীয় খেলা, নির্দিষ্ট কারও ওপর নির্ভরশীলতার কিছু নেই। আমরা দল হিসেবে ভালো করছি। দলের সবাই যার যার জায়গা থেকে চেষ্টা করছে ভালো খেলার। আমরা ওটাই কোয়ালিফায়ারে চেষ্টা করবো, যেন সেরাটা দিতে পারি। অবশ্যই কালকে (সোমবার) জিতে ফাইনাল নিশ্চিত করতে চাইবো।’